Posts

Showing posts from May, 2021

৩১ মে ২০২১

Image
Today is the 31 May, 2021 আজকের দিন বাংলায়---১৬ জ্যৈষ্ঠ সোমবার ১৪২৮ মুঘল সম্রাজ্ঞী নূর জাহান ১৫৭৭  সালে আজকের দিনে জন্মেছিলেন। পিতৃদত্ত নাম ছিল মেহেরউন্নিসা।সম্রাট জাহাঙ্গীরের এই  প্রধান মহিষী ছিলেন বলিষ্ঠ, সম্মোহনী, তৎকালে উচ্চশিক্ষিতা, সবচেয়ে প্রভাবশালী নারী। জাহাঙ্গীরের সময়ে মুঘল সাম্রাজ্যের কর্তৃত্ব একপ্রকার তাঁর হাতে ছিল।   ভারতের মারাঠা মালওয়া রাজ্যের রাণী মহারাণী অহল্যাবাঈ হোলকার ১৭২৫  সালে আজকের দিনে জন্মেছিলেন। ভারতের একজন মহান এবং অগ্রণী মন্দির নির্মাতা। তিনি সারা ভারতে শত শত মন্দির ও ধর্মশালা নির্মাণ করেছিলেন। তিনি তাঁর রাজধানী নর্মদা নদীর ওপর ইন্দোরের দক্ষিণে মহেশ্বর অঞ্চলে সরিয়ে নিয়ে যান। স্বনামধন্য বাঙালি কবি কৃষ্ণচন্দ্র মজুমদার ১৮৩৪ সালে আজকের দিনে জন্মেছিলেন। আর্থিক অসচ্ছলতার কারণে তাঁর পক্ষে উচ্চশিক্ষা গ্রহণ করা সম্ভব হয়নি। তাঁর প্রথম ও শ্রেষ্ঠ গ্রন্থ সদ্ভাব শতক। এই বইটির অধিকাংশ কবিতা নীতিমূলক, যা সুফী এবং হাফিজের ফার্সি কবিতার অনুসরণে রচিত। তাঁর রচনা প্রসাদগুণসম্পন্ন এবং তাঁর  কবিতার অনেক পংক্তি প্রবাদবাক্যস্বরূপ, যেমন: ‘চিরসুখী জন ভ্রমে কি কখন ব্যথি

আধুনিক চিত্রশিল্পের ইতিহাস

Image
আধুনিক চিত্রশিল্পের ইতিহাস -৪৩ শ্যামল জানা সাররিয়েলিজম্ (দ্বিতীয় অংশ) আমরা জেনেছি— "Surrealism" কথাটির বাংলা মানে “পরাবাস্তবতা”৷ শুধুমাত্র এই একটি শব্দ থেকে কিন্তু কিছুই বুঝতে পারা যায় না৷ তাই প্রয়োজনীয় ব্যাখ্যা আমরা আগের কিস্তিতে করেছি৷ আর, যদি আমরা সংজ্ঞার মতো করে জানতে চাই, তাহলে, "Surrealism" কথাটি ১৯৬৭ সালে প্রথম যে অভিধানে(Merriam-Webster dictionary) যুক্ত হয়েছিল, সেটিই সংজ্ঞা হিসেবে যথার্থ— “marked by the intense irrational reality of a dream.”৷ আর, যদি ব্যাখ্যা হিসেবে দেখি, তাহলে,  ফরাসি কবি আন্দ্রে ব্রেতোঁ-র “সাররিয়েলিস্ট ম্যানিফেস্টো”-তে লেখা একটি-দুটি অংশ ইংরাজিতে তুলে ধরলে বোঝার ক্ষেত্রে সবচেয়ে সুবিধা হবে৷ সেটি হল— “Surrealism is based on the belief ... in the omnipotence of dreams, in the undirected play of thought ... pure psychic automatism, by which it is intended to express … the real process of thought. It is the dictation of thought, free from any control by the reason and of any aesthetic or moral preoccupation.” ১৯১৭ সালের মার্চ মাস

ছোটোবেলা বিশেষ সংখ্যা -৩৫

Image
ছোটোবেলা বিশেষ সংখ্যা -৩৫ সম্পাদকীয় আমরা যখন ছোটো ছিলাম, বাড়িতে মা ঠাকুমারা জন্মদিন নয়, জন্মমাস পালন করতেন মনে আছে। অর্থাৎ বৈশাখে কারো জন্মদিন হলে তাকে বৈশাখের একটি ছুটির দিন দেখে পায়েস আর পঞ্চব্যঞ্জন সহযোগে খাওয়াতেন। একমাসে দুই ভাই বোনের জন্মদিন থাকলে একসাথে দুজনকে খাওয়াতেন। আজ এ কথার অবতারণা করছি কারণ আজ আমরা বিশ্ববরেণ্য পরিচালক সত্যজিৎ রায়ের জন্মমাস স্মরণ করব। হ্যাঁ, তোমরা এতদিনে সকলে জেনে গেছ, গত ২ রা মে ছিল সত্যজিৎ রায়ের শততম জন্মবার্ষিকি। এই দিনটিকে মাসটিকে এমনকি বছরটিকেও স্মরণীয় করে রাখতে আমরা আমাদের ছোটোবেলার পাতায় প্রণম্য প্রবন্ধকার দেবাশিস মুখোপাধ্যায় (দে মু) এর কলমে সত্যজিৎএর লেখাগুলির জন্মদিনের গল্প শুনে নেব।  তাছাড়া বেথুন কলেজের আচার্য্যা কৃষ্ণা রায়ের কলমেও সত্যজিৎএর জন্মদিনকে কেন্দ্র করে  একটি গল্প পড়ে নেব। জন্মদিনের এই আয়োজনকে সম্পূর্ণ করতে বীরভূমের কবি সন্দীপন রায় আর কালনার কবি মৌসুমী চট্টোপাধ্যায়ের কবিতা দুটি বিশেষ ভূমিকা পালন করেছে। না না মুখ গোমড়া করার কোনো কারণ নেই। তোমাদের পছন্দের মন পসন্দ কেকও আছে। সেগুলো অক্ষর দিয়ে বানিয়েছে তোমাদের দুই বন্ধু শ্রীপর্ণা

৩০ মে ২০২১

Image
Today is the 30 May, 2021 আজকের দিন  বাংলায় --১৪ জ্যৈষ্ঠ রবিবার ১৪২৮ বাঙালি অভিনেতা ধৃতিমান চ্যাটার্জি ১৯৪৫ সালে আজকের দিনে জন্মেছিলেন। প্রকৃত নাম সুন্দর চ্যাটার্জী। ১৯৭০ সালে সত্যজিৎ রায়ের ‘প্রতিদ্বন্দ্বী’ সিনেমা দিয়ে অভিনয় জীবন শুরু। এ ছবিতে  চাকরির পেছনে হন্যে হয়ে ঘুরে বেড়ানো,হতাশার সাথে নিত্য অভ্যস্ত এক তরুণ যুবার কাহিনি অত্যন্ত সুনিপুণ ভাবে ফুটিয়ে তুলেছেন। তাঁর অভিনয়ের বেশিরভাগ কাজ সত্যজিৎ রায়, মৃণাল সেন এবং অপর্ণা সেন প্রমুখ চলচ্চিত্র নির্মাতাদের সাথে।জন্মদিনে শুভেচ্ছা ও শুভকামনা। বিশিষ্ট ভারতীয় ক্রিকেট প্রশাসক জগমোহন ডালমিয়া ১৯৪০ সালে আজকের দিনে জন্মেছিলেন।তিনি দীর্ঘকাল ধরে ভারত ক্রিকেটের সর্বোচ্চ নিয়ন্ত্রণকারী সংস্থা ভারতীয় ক্রিকেট নিয়ন্ত্রণ বোর্ড ও বঙ্গীয় ক্রিকেট অ্যাসোসিয়েশনের সভাপতি ছিলেন। একসময়  তিনি আন্তর্জাতিক ক্রিকেট কাউন্সিলের সভাপতি হিসেবেও দায়িত্ব পালন করেছেন। মিডিয়া জগতে তিনি ভারতীয় ক্রিকেটের ম্যাকিওভেলী, বাস্তববাদী রাজনীতির গুরু, প্রত্যাবর্তনের গুরু প্রভৃতি সম্মানসূচক বিশেষণে ভূষিত ছিলেন।   চলচ্চিত্র নির্মাতা ঋতুপর্ণ ঘোষ ২০১৩ সালে আজকের দিন

নাস্তিকের ধর্মাধর্ম -- পর্ব (৬)/সন্দীপ কাঞ্জিলাল

Image
নাস্তিকের ধর্মাধর্ম -- পর্ব (৬) সন্দীপ কাঞ্জিলাল ধর্মে ঈশ্বরের প্রবেশ  মানুষ জন্মগ্রহণ করে এক জিজ্ঞাসু মন নিয়ে। তাই প্রত্যেকটি শিশু জন্মের পর সবকিছু হাত দিয়ে স্পর্শ করে তার স্পর্শ স্বাদ নিতে চায়। আবার কোন কিছু মুখের মধ্যে পুরে নিয়ে স্বাদ গ্রহণের মাধ্যমে বুঝতে চায় এটা কি। তারপর যখন বড় হতে থাকে, তখন বাড়তে থাকে তার জ্ঞান। তখনই জন্ম নিতে থাকে প্রশ্নের। এটা কি, ওটা কি, এটা কেন হল, কিভাবে হল, বিভিন্ন রকম প্রশ্নের অবতারণা করতে থাকে। উত্তর পেলে তার মন শান্ত হয়। তা না হলে তাকে নিয়ে চলতে থাকে একটার পর একটা প্রশ্ন। একে বলে অনুসন্ধান, সত্যানুসন্ধান। জানতে চাওয়ার এই ক্ষমতা থাকার জন্য মানুষ সমস্ত প্রাণী জগতের মধ্যে শ্রেষ্ঠতম।    মাত্র এক লক্ষ বছর পূর্বেও আমাদেরই পূর্বপুরুষ বাস করত বনে জঙ্গলে নয়তো কোন পাহাড়ের গুহায়, খাবার হিসাবে খেতো গাছের ফলমূল নয়তো শিকার থেকে পাওয়া বন্য জন্তুর কাঁচা মাংস, কারণ আগুন হয়তো তখনও মানুষ আবিষ্কার করতে সক্ষম হয়নি। ছোট ছোট গোষ্ঠীভুক্ত হয়ে তারা একত্রে বাস করত বিভিন্ন বিপদ আপদ হতে একত্রে সাহায্য পাওয়ার জন্য। শিকার করতে গিয়ে কখনো শিকার করত, কখনো

২৯ মে ২০২১

Image
Today is the 29 May, 2021 আজকের দিন  বাংলায়---১৪ জ্যৈষ্ঠ শনিবার ১৪২৮ বাঙালি সাহিত্যিক রামানন্দ চট্টোপাধ্যায় ১৮৬৫  সালে আজকের দিনে জন্মেছিলেন।ইনি প্রবাসী ও মডার্ণ রিভিউ পত্রিকাদ্বয়ের সম্পাদক হিসেবে বিশেষভাবে খ্যাতিমান ছিলেন। পত্রিকার সম্পাদনা ছাড়াও তিনি বেশ কিছু বাংলা ও ইংরেজি গ্রন্থের প্রণেতা। বিংশ শতাব্দীর প্রথমার্ধে বাংলা সাহিত্যে যে আন্দোলন সঙ্ঘটিত হয়েছিল, তার পশ্চাতে তাঁর  ভূমিকা অনস্বীকার্য। কাশিমবাজারের মহারাজা  মণীন্দ্র চন্দ্র নন্দী ১৮৬০ সালে আজকের দিনে জন্মেছিলেন। বাংলার নবজাগরণে তিনি ছিলেন এক সমাজসেবী ও সংস্কারবাদী ব্যক্তিত্ব। দেশের নানা প্রয়োজনে, বিশেষত শিক্ষাবিস্তারের জন্য, তিনি বহু প্রতিষ্ঠান এবং ব্যক্তিবিশেষকে লক্ষ লক্ষ টাকা দান করেছেন। তা ছাড়াও তিনি বৈপ্লবিক কর্মতৎপরতার একজন প্রথম শ্রেণীর পৃষ্ঠপোষক ছিলেন। নেপালী শেরপা তেনজিং নোরগে ১৯১৪  সালে আজকের দিনে জন্মেছিলেন। তিনি ১৯৫৩ সালে আজকের দিনেই এডমন্ড হিলারির সাথে  যৌথভাবে বিশ্বে সর্বপ্রথম পৃথিবীর সর্বোচ্চ শৃঙ্গ এভারেস্ট পর্বত জয় করেন।   ভারতীয়  ৬ষ্ঠ প্রধানমন্ত্রী চৌধুরী চরণ সিং ১৯৮৭ সালে আজকের দিনে প্রয়

২৮ মে ২০২১

Image
Today is the 28 May, 2021 আজকের দিন  বাংলায় ----- ১৩ জ্যৈষ্ঠ শুক্রবার ১৪২৮ ১৮৮৩ সালে আজকের দিনে বিনায়ক দামোদর সাভারকর জন্মেছিলেন। লন্ডনে থাকাকালীন সাভারকর ভারতীয় স্বাধীনতা আন্দোলনের সাথে যুক্ত হয়ে পড়েন।তিনি চেয়েছিলেন সব ধর্ম ও আদর্শের উপরে উঠে সবাই নিজেকে আগে ভারতীয় ভাবুক।স্বাধীনতা লাভের উদ্দেশ্যে ম্যাৎসিনির ইয়ং ইতালির অনুকরণে তিনি  ১৮৯৯ খ্রিস্টাব্দে মিত্রমেলা নামে একটি গুপ্ত বিপ্লবী সমিতি গঠন করেন। পরে ১৯০৪ সালে এটির নামকরণ হয় অভিনব ভারত। আইরিশ কবি ও  গায়ক  টমাস মুর   ১৭৭৯ সালে আজকের দিনে জন্মগ্রহণ করেছিলেন। ছোট বেলা থেকেই তিনি সঙ্গীতের প্রতি আকৃষ্ট ছিলেন । কখনো কখনো তিনি বন্ধুদের সাথে নাটকে অংশ নিতেন। পরে তিনি কবি অনুবাদক ও গায়ক হিসেবে খ্যাতি লাভ করেন । তাঁর কিছু রচনা হল – The Harp That Once Through Tara’s Halls, Believe Me, if All Those Endearing Young Charms, The Meeting of the Waters । বিখ্যাত ব্রিটিশ লেখক ইয়ান ফ্লেমিং ১৯০৮ সালে আজকের দিনে জন্মেছিলেন।  পুরো নাম ইয়ান ল্যাংকেষ্টার ফ্লেমিং। ইনি  একজন  সাংবাদিক ও নৌ-গোয়েন্দা। বিখ্যাত ব্রিটিশ কাল্পনিক গোয়েন্দা

২৭ মে ২০২১

Image
  Today is the 27 May, 2021 আজকের দিন  বাংলায় ----- ১২ জ্যৈষ্ঠ বৃহস্পতিবার ১৪২৮ পল্লীবাংলার  কবি যতীন্দ্রপ্রসাদ ভট্টাচার্য ১৮৯০ সালে আজকের দিনে জন্মেছিলেন। পূর্ববাংলার পল্লী প্রকৃতির সহজ সৌন্দর্য তাঁর সহজ সরল শিশুসুলভ চরিত্রে প্রভাব বিস্তার করেছিল । ফলস্বরূপ  রবীন্দ্র প্রভাবিত যুগে জন্ম গ্রহণ করেও তিনি  ভাবে ও রূপে বাংলা কাব্যে  স্বকীয়তা দেখাতে পেরেছেন।লেনিন' শীর্ষক কবিতা লিখে যদিও  বৃটিশ সরকারের বিরাগভাজন হয়েছিলেন,তবে পরবর্তীকালে সেই  কবিতাই তাঁকে যথেষ্ট খ্যাতি দান করেছিল। বাঙালি সাংবাদিক যোগেশচন্দ্র বাগল ১৯০৩  সালে আজকের দিনে জন্মেছিলেন। রামানন্দ চট্টোপাধ্যায় প্রতিষ্ঠিত 'প্রবাসী' ও 'মডার্ন রিভিউ' পত্রিকার সম্পাদকীয় বিভাগে কর্মরত ছিলেন।স্ত্রীশিক্ষা সম্বন্ধে তাঁর লেখা ইংরাজীতে 'Women's Education in Eastern India' এবং 'স্ত্রীশিক্ষার কথা' বই দুখানি বিশেষ তথ্যবহুল। তাঁর রচিত গ্রন্থের সংখ্যা ৩৫ এর বেশি। প্রাক্তন ভারতীয় ক্রিকেটার রবি শাস্ত্রী ১৯৬২ সালে আজকের দিনে জন্মেছিলেন। পুরো নাম রবিশঙ্কর জয়াধ্রীতা শাস্ত্রী। তাঁর আন্তর্জাতিক ক্যারিয়ার শুর

স্নেহলতার স্নেহচ্ছায়া/মিতা ঘোষ

Image
ফোটোগ্রাফি - সৈয়দ স্নেহাংশু  স্নেহলতার স্নেহচ্ছায়া মিতা ঘোষ          টুলে বসার আগে স্নেহলতা গায়ের পশমের চাদরটা একটু গুছিয়ে নিলেন। যদিও পৌষ সংক্রান্তি, তবু এখানে তেমন একটা ঠান্ডা পড়ে না। গতকাল স্থানীয় জনতা বাজার থেকে নীচু একটা টুল এনে দিয়েছে সুমি। আজকাল আর নীচে বসতে পারেন না স্নেহলতা, তাই। কাজের এদেশীয় মেয়েটি যাবার আগে যতটা সম্ভব কাজ গুছিয়ে দিয়ে গেছে। সামনে খবরের কাগজের উপর কোরা নারকেল আর চালের গুঁড়োর স্তূপ। স্নেহ এখনকার আধুনিক সব গ‍্যাজেট চালাতে পারেন না। শেখার ইচ্ছে যে আছে, তেমনটাও নয়। অথচ বছর দশেক আগেও এসব তাঁর 'বাঁয়ে হাত কা খেল' ছিল। বড়ো বড়ো পরাত ভর্তি পিঠে, দুধে ডোবানো আশকে,পুলি, পাটিসাপটা, চুষির পায়েস...কি না বানাতে পারতেন তিনি! কেমন যেন গতজন্মের মতো লাগে তাঁর! সত্যিই ওই দিনগুলো, ওই মানুষগুলো তাঁর সঙ্গে ছিল!! সুমিটা ছোটবেলায় খুব পিঠে পায়েস খেতে ভালোবাসতো। মাকে তো পায়নি, ঠাম্মির কাছেই যাবতীয় আবদার ছিল তার। যদিও ইচ্ছে থাকলেও সবসময় যে স্নেহ তার আবদার পূরণ করতে পেরেছেন এমনটা নয়। একপাল নাতি নাতনির মধ্যে সুমিকে আলাদা করে যত্ন নেওয়া তাঁর পক্ষে সম্ভব ছিল না। তদুপরি সুম